রবিবার, নভেম্বর ২৯, ২০২০
Home জীবনযাপন করোনা হলে আইসোলেশনে কি ওসুধ খাচ্ছেন রোগীরা

করোনা হলে আইসোলেশনে কি ওসুধ খাচ্ছেন রোগীরা

করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) আক্রান্ত রোগীদের জন্য চিকিৎসা কার্যক্রম পরিচালনা করছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী চলছে এই কার্যক্রম। রোগীদের জন্য নির্দিষ্ট করা হয়েছে বিভিন্ন ধরণের ওষুধও। এসব ওষুধের মধ্যে কিছু মিলও রয়েছে। তবে রোগীর রোগ অনুযায়ী ওষুধের কিছু ভেদাভেদও আছে।

প্যারাসিটাল ওষুধ সব রোগীকেই সাধারণত দেয়া হচ্ছে। যাদের তেমন কোনো সিমটম নেই তাদের অনেক ক্ষেত্রেই দেওয়া হচ্ছে এই ওষুধ।

ফেক্সোফেনাডিন-১২০ দেওয়া হয় এলার্জি, চোখ মুখ চুলকানো কমাতে, নাক বন্ধ, নাক দিয়ে পানি পরা এসব থাকলে দেওয়া হয়। এটাও বেশির ভাগ রোগীকেই দেওয়া হচ্ছে। শ্বাসকষ্ট ও কাশি হলে ডিসক্সট্রোমথোরফান হাইড্রোব্রোমাইড জাতের ওষুধ দেওয়া হয়ে থাকে।

এন্টিবায়েটিক নিচ্ছেন রোগীরা। ডক্সিসাইক্লিন দেওয়া হচ্ছে শ্বাসতন্ত্রের ইনফেকশন রোধে। অ্যাজিথ্রোমাইসিন ফুসফুসের সমস্যা সমাধানে ব্যবহৃত হয়ে থাকে। এছাড়া এন্টি ভাইরাল কিছু ওষুধও ব্যবহৃত হচ্ছে। হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন মুলত ম্যালেরিয়া বিরোধী ওষুধ। কিন্তু কোভিড-১৯ রোগীদের জজন্যেও ব্যবহার করা হচ্ছে। সেফুরোক্সিম জাতীয় একটি এন্টিবায়োটিক খাওয়ানো হচ্ছে রোগীদের।

এছাড়া আরো কিছু ওষুধ ব্যবহার করা হচ্ছে। শ্বাস কষ্টের জন্য মনটেলুকাসট জাতের মোনাস নামের একটি ওষুধও রোগীদের দেওয়া হয়ে থাকে। ডক্সিফাইলিন জাতের ওষুধও খাওয়ানো হচ্ছে রোগীদের। এছাড়া আইভারমেকটিনও দেওয়া হচ্ছে করোনা রোগীদের আইসোলেশনে থাকাকালীন।

আরো ব্যবহার করা হচ্ছে রেমডেসিভির ও এভিগান। তবে এগুলো এখনো ব্যাপকভাবে ব্যবহার শুরু করেনি চিকিৎসকরা। ভিটামিন সি ও ডি ব্যবহৃত হচ্ছে সঙ্গে আছে জিংক।

তবে কেউ নিজ থেকে এই ওসুধগুলো খেতে যাবেন না। রোগীভেদে, সিমটম বুঝে ডাক্তাররা বিভিন্ন ওষুধ নির্ধারণ করেন।

তবে করোনা রোগীদের বেশি বেশি গরম পানির ভাপ, গারগেল করতে বলা হচ্ছে। এছাড়া লং,আদা, কালোজিরা অথবা মধু দিয়ে চা বা কুসুম কুসুম গরম পানি পান করতে বলা হচ্ছে। এছাড়া খাবারে দুধ, ডিম, মাংস খাওয়ার প্রতি জোর দেয়া হচ্ছে। এছাড়া মালটা, পেয়ারা, লেবু, কমলাসহ বিভিন্ন সিজোনাল ফল খাওয়া উচিত বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা।

- Advertisement -

সাথে থাকুন

16,985FansLike
2,000FollowersFollow
3,600FollowersFollow
2,458FollowersFollow
4,251SubscribersSubscribe

বিশ্বজুড়ে

দক্ষিণ আফ্রিকায় বাংলাদেশিকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে হত্যা

0
দক্ষিণ আফ্রিকায় এক মালাওয়ি নাগরিক ঘুমন্ত অবস্থায় বাংলাদেশি জাহিদ হাসান জিতুকে (৩৫) হাতুড়ি দিয়ে আঘাত করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।গত ২০ নভেম্বর গভীর রাতে ইস্টার্নকেপ...

পুলিশের ইউনিফর্মে হিজাব যুক্ত করল নিউজিল্যান্ড

0
মুসলিম ধর্মাবলম্বী নারী পুলিশ সদস্যদের ইউনিফর্মের সঙ্গে হিজাব পরার অনুমতি দিয়েছে নিউজিল্যান্ড।এ বাহিনীতে যোগ দেওয়া কনস্টেবল জিনা আলী দেশটির প্রথম হিজাব পরিহিতা পুলিশ সদস্য...

নয়াদিল্লিতে বাংলাদেশ হাইকমিশনের প্রেস মিনিস্টার শাবান মাহমুদ

0
২ বছরের জন্য ভারতের নয়াদিল্লিতে বাংলাদেশ হাইকমিশনের মিনিস্টার (প্রেস) পদে নিয়োগ পেয়েছেন সাংবাদিক শাবান মাহমুদ।আজ(১৬ নভেম্বর) এই নিয়োগ দিয়ে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে আদেশ জারি...

ড. ওসমানের বাইডেনের উপদেষ্টা হওয়ার খবরটি সত্য নয়

0
যুক্তরাষ্ট্রের ভার্জিনিয়া প্রবাসী সাবেক কূটনীতিক এবং বর্তমানে দেশটির রাজনীতিতে যুক্ত বাংলাদেশি ড. ওসমান সিদ্দিক নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট বাইডেনের উপদেষ্টা হতে যাচ্ছেন বলে সম্প্রতি একটি...

ভারতে পুত্রসন্তানের আশায় ৬ বছরের মেয়েকে খুন

0
পুত্রসন্তানের আশায় ভারতের ঝাড়খণ্ডে ৬ বছর বয়সের এক কন্যা শিশুকে খুন করেছে তার পিতা।কুসংস্কারে বিশ্বাস করে, এক ওঝার পরামর্শে পুত্রসন্তান পাওয়া যাবে এমন বিশ্বাসে...
- Advertisement -

সর্বশেষ খবর

সুনামগঞ্জে ছেলের হাতে বাবা খুন

0
সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলায় ছেলের যাঁতির আঘাতে বাবার মৃত্যু হয়েছে। নিহতের নাম ইসলাম উদ্দিন (৫২)।গতকাল(২৮ নভেম্বর)...

কিশোরগঞ্জে চলন্ত অটোরিকশায় সিলিন্ডার বিস্ফোরণ, গুরুতর আহত মা-মেয়ে

0
কিশোরগঞ্জে সিএনজিচালিত অটোরিকশায় গ্যাস লিকেজ থেকে অগ্নিকাণ্ডে মা ও মেয়ে গুরুতর দগ্ধ হয়েছেন।আজ (২৯ নভেম্বর)...

বিগত কয়েক বছরে দুর্নীতি কমেছে : দুদক চেয়ারম্যান

0
দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ দাবি করে বলেছেন, বিগত কয়েক বছরে দেশে দুর্নীতি...

বঙ্গবন্ধু রেলসেতুর ভিত্তি স্থাপন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

0
যমুনা নদীর ওপর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব রেলওয়ে সেতুর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।আজ (২৯...

নড়াইলে ট্রাকের ধাক্কায় প্রাণ গেল সবজি ব্যবসায়ীর

0
নড়াইলে সড়ক দুর্ঘটনায় এনামুল শেখ (৩৫) নামে এক সবজি ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন।আজ(২৯ নভেম্বর) সকাল ৬টার...

আজ মহানগর যুবলীগ নেতা মনজুরের এর কুলখানি

0
নিজস্ব প্রতিবেদকঃ কুমিল্লার সাবেক ছাত্রলীগ নেতা, কুমিল্লা মহানগর যুবলীগ নেতা, কুমিল্লা সদর আসনের সংসদ সদস্য...

ফলোআপ চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুর যাচ্ছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল

0
অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ফলোআপ চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরের উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছেন।গতকাল (২৮ নভেম্বর)...

৪ চিকিৎসকের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা

0
১টি কিডনি অপসারণের কথা বলে ২টি কিডনি অপসারণের ঘটনায় এক রোগীর মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে বঙ্গবন্ধু...

মামুনুল হক ও ফয়জুল করিমকে গ্রেফতারের দাবিতে সমাবেশ

0
বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য নির্মাণের বিরোধিতা করায় ও মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.) কে অবমাননা করায় মামুনুল হক...

ফরিদপুরে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর ভিডিও ধারণ, যুবক গ্রেফতার

0
ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গায় অষ্টম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে হারুন শেখ (৩০) নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার...
- Advertisement -